বড় হওয়ার সাথে সাথে কোন অভ্যাসগুলি ত্যাগ করা উচিত?
বড় হওয়ার সাথে সাথে কোন অভ্যাসগুলি ত্যাগ করা উচিত?

বড় হওয়ার সাথে সাথে কোন অভ্যাসগুলি ত্যাগ করা উচিত?

নখ কামড়ানোর বদঅভ্যাশ

দাঁত দিয়ে নখ কাটা বা নখ কামড়ানোর বদঅভ্যাস অনেকের রয়েছে। নখ কামড়ানো আপনার আত্মবিশ্বাসের অভাব প্রকাশ করে। অনেকের ক্ষেত্রে মানষিক ধকল কমাতে সাহায্য করে। তবে আপনি যদি মানুষের সামনে নখ কামড়ান তাহলে আপনার সামনের মানুষটি আপনার উপর বিরক্তহতে পারে। এই অভ্যাসের কারণে আপনার নখের আকার হয়ে যায়। সবচেয়ে বড় কথা এটা আপনার আচরণ এবং অভিজাত্য নষ্ট করে।

সোশ্যাল মিডিয়া

আপনি যদি খুব বেশি সোশ্যাল মিডিয়ায় যেমন ধরুন ফেসবুক, ইন্সটাগ্রাম,টিকটক ইত্যাদি অ্যাডিক্টেড হয়ে যান তাহলে আপনার স্বাভাবিক জীবনযাত্রায় ব্যাঘাত ঘটবে। আপনি নিজের অবস্থান বুঝার জন্য নিজেকে এক সপ্তাহের জন্য সোশ্যাল মিডিয়া থেকে বিরত থাকুন তাহলে নিজে আপনার অবস্থান বুঝতে পারবেন।

 

অসৎ সঙ্গ ত্যাগ করা

বড় হওয়ার সাথে সাথে আমাদের সাথে অনেকের বন্ধুত্ব হয়। তার মধ্যে অনেকে ভালো এবং অনেকের খারাপ থাকে। আমাদের তাদের মধ্যে থেকে ভালো বন্ধুত্বের রেখে খারাপ দের সঙ্গ ত্যাগ করা উচিত। কারণ বাংলায় একটা কথা আছে “সৎ সঙ্গে স্বর্গবাস অসৎ সঙ্গে সর্বনাশ”।

আপনি যদি অসৎ মানুষের সঙ্গে মিশেন তাহলে আপনার খারাপ হওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেশি থাকবে। তো সবসময় খারাপ বন্ধুত্ব থেকে নিজেকে বিরত রাখবেন।

রাতে দেরি করে ঘুমানোর অভ্যাস

আপনার যদি রাত তিনটা পর্যন্ত জেগে থাকার অভ্যাস থাকে তাহলে সেটা ট্যাগ করুন। আপনি রাত ৩ টায় ঘুমানোর পর 11 টার সময় ঘুম থেকে উঠে যে ফ্রেশ ফিল মনে করবেন, এর থেকে যদি আপনি রাত্রে ১১ টায় ঘুমান এবং পাঁচটায় উঠেন তার থেকে খুব বেশি ফ্রেস মনে হবে নিজেকে।

 

বিপরীত লিঙ্গের প্রতি আকর্ষণ

বড় হবার সাথে সাথে আমাদের প্রত্যেককের বিপরীত লিঙ্গের প্রতি আসক্তি বেড়ে যায়। যার কারণে আমরা বিভিন্ন বিপরীত লিঙ্গের প্রতি দুর্বল হয়ে যাই। দিন শেষে যার কোন মূল্য নেই।

ছোট বয়সে এই ব্যাপারটা অনিচ্ছাকৃতভাবে বা বয়সন্ধিকালের জন্য অনিয়ন্ত্রিত হয়ে পড়ে। কাজেই এসব নিজেকে বিরত রেখে সফলতার দিকে ফোকাস করুন।

এছাড়াও আমাদের অনেক বদ অভ্যাস আছে যেগুলোর নিজে নিজে ফাইন্ড করে ত্যাগ করা উচিত। আশা করি আমাদের এই লেখা আপনাদের ভালো লেগেছে যদি ভালো লাগে তাহলে আমাদের লেখাটি সবার মাঝে ছড়িয়ে দিন। ধন্যবাদ।

 

 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *