৯ টি ভূল যা জীবনকে ধ্বংস করে দেয়
৯ টি ভুল যা জীবনকে ধ্বংস করে দেয়

৯ টি ভূল যা জীবনকে ধ্বংস করে দেয়

জীবনে চলার পথে আমরা নানা ধরনের ভুলভ্রান্তি করে থাকি। তার মানে এই নয় যে একটা ভুল করলেই আমাদের জীবনটা ধ্বংস হয়ে যাবে। হ্যাঁ ভুল করলে হয়তো আমাদের জীবনের চলার ক্ষেত্রে সাময়িক কষ্ট হতে পারে কিন্তু জীবন ধ্বংস হতে পারে না।

আপনি যাই করেন না কেন তার অবশ্যই কোন না কোন বিকল্প পন্থা আছে তা শুধরে নেওয়ার জন্য। আজকে আমরা এমন কিছু ভুলের কথা বলবো যা আমাদের করা ঠিক নয়।

যা ভুল হলে আপনি হয়তো সাময়িক কষ্ট বা জীবনে চলার পথে কিছু বাধাগ্রস্ত হতে পারেন। তো চলুন দেখে আসি এমন কিছু ভুল যা আপনার জীবনের চলার পথকে বাধাগ্রস্ত হতে পারে বা জীবনের চলার পথে কিছু ব্যাধাত করতে হতে পারে-

জীবন নষ্টে মাদকের নেশা

মাদক একটা ভয়ংকর জিনিস। যা আপনার জীবনকে তিলে তিলে ধ্বংস করে দিবে। বাংলাদেশ একটা এড ছিল যার একটা বাক্য ছিল “এক টানে দুই টানে কিছু হয় না”। আসলে একটা দুই টানে অনেক কিছুই হয়, যা আমরা প্রথমে না বুঝলেও পরে বুঝতে পারি।

মাদক যদি কেউ একবার সেবন করে আর সেটা যদি তার নেশা হয়ে যায় তাহলে তার জীবনের লক্ষ টাই সে স্থির করতে পারে না। সে জীবন টাকে ধীরে ধীরে অন্ধকারের পথে নিয়ে যায় এবং আলোর পথ থেকে হারিয়ে যায়। সুতরাং মাদককে সবসময় না বলুন এবং মাদক এড়িয়ে চলুন।

 

জীবন যাত্রার তুলনা

ভুল করেও নিজের জীবন যাত্রার সাথে অন্যের জীবনযাত্রার তুলনামূলক করবেন না, এতে আপনার জীবনযাত্রার মাত্রায় আলকাতরা পড়ে যেতে পারে। মনে রাখবেন আলকাতরার রং কিন্তু কালো, কথা শুনতে বা পড়তে খারাপ লাগলেও সেটা আপনার জীবনের জন্য অনেক ভালো।

 

অলসতা

বাংলা একটা প্রবাদ আছে “অলস মস্তিষ্ক শয়তানের আড্ডা”। আপনি যখন অলসতায় দিন কাটাবেন তখন আপনি বিভিন্ন ধরনের ডিপ্রেশনে ভুগবেন। আর এই নিজেকে ডিপ্রেশন মুক্ত করার জন্যই বিভিন্ন ধরনের অপরাধমূলক কার্যক্রমে যারা যেতে পারেন।

 

প্রতিনিয়ত মিথ্যা কথা বলা

একটা কথা আছে “মিথ্যা সকল পাপের মা”। আপনি হয়ত মিথ্যা বলে সাময়িকভাবে কোনকিছু থেকে পার পেয়ে যেতে পারেন। কিন্তু পরে আপনাকে এই মিথ্যা ঢাকার জন্য আবার মিথ্যা বলতে হবে। এভাবে একটার পর একতা মিথ্যা বলে আপনাকে পুরনো মিথ্যা ঢাকতে হবে। কিন্তু তারপরেও সেই মিথ্যা ধরা পড়ে যাওয়ার সম্ভবনা থেকে যায়। যা পরে আপনাকে অনেক ভোগান্তিতে ফেলে দিবে।

সুতরাং কোন দোষ বা কন ভুল করে থাকলে তা স্বীকার করতে জানুন। যদি সেই দোষের বা ভুলের জন্য সময়িক কথা শুনতেও হয় তারপর ও স্বীকার করে নিন। দেখবেন পরবর্তীতে আপনার চলার পথ সহজ হবে এবং আপনি যে ভুল করে যা শিখেছে তা আর ভুল হবে না।

বন্ধুত্ব

এমন কারো সাথে বন্ধুত্ব করবেন না যাদের হাতে প্রচুর সময়। তাদের সাথে বন্ধুত্ব করবেন না, তাদের সাথে বেশি টাইম স্পেন্ড করবেন না যাদের কাছে প্রচুর সময় তাদের সাথে বন্ধুত্ব করুন যারা তাদের কাজকে সময় দেয়। কারণ তারা তাদের স্বপ্ন নিয়ে তাদের প্রতিভা নিয়ে ব্যস্ত থাকে যা আপনার জন্য অনেক ভাল অতএব, তাদের সাথে বন্ধুত্ব করবেন না ভুলেও যাদের হাতে প্রচুর সময়।

 

সব সময় অতিরিক্ত লোভ করা

একটা প্রবাদ বাক্য আছে “অতি লোভে তাতি নষ্ট”। আপনার যদি খুব বেশি লোভ থাকে তাহলে আপনি কারো কোন ক্ষতি করতে দ্বিধা করবেন না। যা হয়তো আপনাকে সাময়িকভাবে শান্তি প্রদান করবে কিন্তু এই লোভের কারণে আপনি বিভিন্ন সময় বিভিন্ন ধরনের সমস্যায় পড়তে পারেন।

যেমন বাংলাদেশে ঘুষ বলে একটা কথা আছে যা কিন্তু মানুষ লোভের কারণে নিয়ে থাকে। আর এই ঘুষের কারণেই মানুষকে তার চাকরী বা বিভিন্ন কর্মস্থল থেকে কর্মচ্যুত হতে হয়। তাই বেশি লোভ না করে নিজের স্থান থেকে সৎ ভাবে জীবন পরিচালনা করতে শিখুন যে আপনাকে খুব শান্তিতে জীবন যাপন করতে সাহায্য করবে।

 

সঠিক জীবনসঙ্গী নির্বাচন করা

আমাদের মধ্যে একটা বাজে স্বভাব আছে, আমরা কোন কিছু না ভেবে কোন কিছু ভালোভাবে চিন্তা না করে আবেগের বশবর্তি হয়ে আমাদের জীবনসঙ্গী নির্বাচন করে থাকি। যা কোনোভাবেই ঠিক নয়, আর এই হুট করে জীবনসঙ্গী নির্বাচন করার জন্যই আমাদের জীবনে অনেক সমস্যার সম্মুখীন হতে হয় এবং পরবর্তীতে নিজেকে অনেক কষ্টের সম্মুখীন করতে হয়।

সুতরাং কষ্টের হাত থেকে নিজেকে মুক্ত রাখতে এবং সামাজিকভাবে শান্তিতে বসবাস করার জন্য অবশ্যই জীবনসঙ্গী নির্বাচন করার আগে অনেক বুঝে শুনে জীবনসঙ্গী নির্বাচন করা উচিত।

 

ব্যাচেলর থেকে ম্যারেজ লাইফ

ব্যাচেলর থেকে ম্যারেজ লাইফ এ প্রবেশ করার পর কোন সময় ওই ব্যাচেলর লাইফের সাথে এই বর্তমান লাইফের কম্পেয়ার বা তুলনা করবেন না। ব্যাচেলর লাইফ বা জীবন ব্যাচেলর লাইফের মতো আর বর্তমান জীবন বর্তমান জীবনের মত। আপনি যদি বর্তমান জীবনে এসে ব্যাচেলর লাইফ এর মত করে চিন্তা করেন তাহলে আপনার মধ্যে অসুখ ছড়িয়ে পড়বে। আপনার কাছে আছে বর্তমান, ভবিষ্যৎ, বর্তমানে আপনার জীবনে সুখ এর পরিমাণ বাড়বে বা কমবে তা আপনার বর্তমান দিনের উপরে নির্ভর করবে।

 

আশা করি আমাদেরকে এই পয়েন্টগুলো আপনাদের ভাল লেগেছে। যদি আমাদের এই লেখাটা আপনার ভালো লেগে থাকে, তাহলে আপনি আমাদের এই লেখাটাকে বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করে আপনাদের ফ্রেন্ডদের করতে সহায়তা করুন।

 

 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *